ঢাকাই সিনেমার আলোচিত অভিনেত্রী প্রার্থনা ফা’রদিন দীঘি। একসময়ে শিশুশিল্পী হিসেবে অভিনয় করলেও রূপালি জগতে তিনি এখন চিত্রনায়িকা।

কিন্তু এ যাত্রাটুকু তার জন্য তেমন সুখকর নয়। পথে পথে নানা জুট-ঝামেলা পোহাতে হয়েছে। গত মার্চে মুক্তি পেয়েছে শান্ত এবং দীঘির সিনেমা ‘টুঙ্গিপাড়ার মিয়া ভাই’। আর এ সিনেমাটিই দীঘির অভিনীত প্রথম মুক্তিপ্রাপ্ত সিনেমা। সিনেমার পাশাপাশি টিকটকের জগতে বেশ আলোচিত নাম দীঘি।

মাই টিভি মালিকের ছেলে তথা ইউটিউবার তৌহিদ আফ্রিদির সঙ্গে বেশ কিছু টিকটক করেছেন তিনি। যার সুবাদে গুঞ্জন, এই জুটির মধ্যে বিশেষ কোনো সম্পর্ক রয়েছে। সম্প্রতি একটি ভিডিও সাক্ষাৎকারে সেই বিষয়টা পরিষ্কার করলেন দীঘি। অভিনেত্রী দাবি করেন, তৌহিদ আফ্রিদি আমার খুব ভালো ফ্রেন্ড।

ওর সঙ্গে আমার ‘তুই তুকারি’ সম্পর্ক। যদিও আমাদের দেখা কম হয়েছে। আমি যখনই ওকে ফোন দেই, ও ফোন ধরে আগে আমাকে তুই বলে একটা গালি দেয়। ওর সঙ্গে আমার এরকম একটা সম্পর্ক। সো, ফ্রেন্ডের চেয়ে বিশেষ কিছু হওয়ার প্রশ্নই ওঠে না।

প্রসঙ্গত, চলতি বছরে দেলোয়ার জাহান ঝন্টু পরিচালিত ‘তুমি আছো তুমি নেই’ ছবির মাধ্যমে নায়িকা হিসেবে অভিষেক হয়েছে সুব্রত ও দোয়েল দম্পতির মেয়ে দীঘির। এরপর মুক্তি পায় তার আরো এক ছবি ‘টুঙ্গিপাড়ার মিয়া ভাই’। কিন্তু কোথাও আগের দীঘিকে খুঁজে পায়নি দর্শক।

তাই এই নায়িকা আপাতত ব্যস্ত নিজেকে তৈরি করার কাজে। কিছুদিন আগেই ‘বঙ্গবন্ধু’ বায়োপিকের চিত্রায়ণ শেষ করে মুম্বাই থেকে ঢাকায় ফিরেছেন। ফিরতে অবশ্যই অনেকটা বেগ পেতে হয়েছে তাকে। কারণ মুম্বাই থাকতেই লকডাউন ঘোষণা হয়েছিল। ফলে টিকিট পেতে অপেক্ষা করতে হয়েছে এই অভিনেত্রীকে। দেশে ফিরে নিজেকে ঘরবন্দি করেছিলেন এ নায়িকা।